তোমাকে ভোলা আর হলোনা

তোমাকে ভোলা আর হলোনা
-ধূসর আধার

আজ অনেকক্ষণ হলো বৃষ্টি
অনেকখানি শূন্যতা মিশে যাচ্ছে শীতল হাওয়ায়
জানালায় টোকা মেরে পালিয়ে যাচ্ছে মেঘ,
অথচ আকাশে মেঘ করলেই তোমার নানা আয়োজন,
তোমার খিলখিল হাসিতে ভরে উঠতো এই ঘর।

সন্ধ্যার আগেই চুলের গভীরতা দিয়ে
এই তো সেই ঘর, যেখানে প্রদীপ জ্বালিয়ে থাকতে আমার অপেক্ষায়।

আমি বুঝি এখন, যতটুকু বোঝাতে চাইতে।
আমি বুঝি এতটুকুই যে,
তোমাকে ভুলে যাওয়া অনেক কঠিন
যেমন করে বসন্তের গায়ে গ্রীষ্মের কফিন
যেমন করে চোরাবালির মতো হৃৎপিন্ড খায় আফিম
যেমন করে খোলা চুল হাওয়ার অধীন
তোমাকে ভুলে যাওয়া অনেক কঠিন।

তুমি যা করতে,
অনেকটা রাত যেভাবে না ঘুমিয়ে
কাটিয়ে দিতো তোমার চোখ,
সেভাবে আমারও অনিদ্রায় ভুগতে থাকা
একটি প্রিয় সুখ।