অথচ

অথচ
-জাকিরুল ইসলাম জুয়েল

মেয়েটি চেয়েছিলো আকাশ হবে
শরতের ভেলায় চড়ে কাশফুলকে ছুঁয়ে দেবে ভালোবেসে,
অথচ
কিছু অচেনা কালো মেঘে
হারিয়ে গেছে তার একচিলতে আকাশ।

মেয়েটি ভাবতো প্রজাপতি হবে
ফুলের গন্ধে বিভোর হবে,
অথচ
ফুলের কাঁটায় বিদ্ধ হয়ে
ভেসে গেছে তার হৃদয়ের ক্যানভাস।

মেয়েটি চেয়েছিলো নদী হবে
মাটির শক্ত বাঁধাকে পিছনে ফেলে
সাগরের সাথে মিশবে সে।
অথচ
সমস্ত জল শুকিয়ে গিয়ে
আজ তার অস্তিত্বের সঙ্কট,
নিজের স্বপ্নকে বিলিয়ে দিয়ে
আজ সে কৃষকের জমিন।

মেয়েটি ভাবতো প্রেয়সী হবে
ভালোবেসে অমর হবে
অথচ
ভালোবাসা হীনতায় কেটে যায় তার নির্ঘুম রাত।
হেডফোনে প্রিয় গানগুলো
আজকে ভীষণ অপ্রিয় লাগে।

যে মেয়েটি স্বপ্ন দেখতো
আজকে তার স্বপ্নে ভীষণ ভয়,
অথচ
শহরের প্রতিটি ধূলিকণা জানে,
স্বপ্নহীন এই মেয়েটি সাহসী ছিলো, প্রেয়সী ছিলো, নদী ছিলো
অথচ…