রকিবুল ইসলাম মুকুলের শিশমহল

বাংলাবাজার পত্রিকা
ঢাকা: শুধু অমর একুশে বইমেলা নয়, পাঠক তৈরি ও বিপর্যস্ত সমাজকে সংস্কৃতি চর্চার সঙ্গে রাখার আন্দোলনে সারাবছর বই প্রকাশের সিদ্ধান্ত নিয়েছেন দেশের দায়িত্বশীল প্রকাশকরা।

এরই অংশ হিসেবে প্রকাশিত হল কথাসাহিত্যিক ও সাংবাদিক রকিবুল ইসলাম মুকুলের জীবনমুখী উপন্যাস ‘শিশমহল’। উপন্যাসটি প্রকাশ করেছে খ্যাতিমান প্রকাশনী অনন্যা। প্রচ্ছদ করেছেন ধ্রুব এষ।

সমকালীন এই উপন্যাসটিতে করোনা মহামারিকালে মানুষের মনস্তত্ব, ঘরবন্দি জীবন থেকে সাম্প্রতিককালের সামাজিক অবক্ষয়, অস্থিরতা ইত্যাদি বিষয় উঠে এসেছে।

উপন্যাসে গ্রাম থেকে শহর, শহর থেকে গ্লোবাল ভিলেজ, শেকড়ের টান, সামাজিক দায় বদ্ধতা, প্রাপ্তি অপ্রাপ্তি থেকে শুরু করে মনোজগতে ঘটে যাওয়া দহনকালের বর্ণনা তুলে এনেছেন উপন্যাসিক।

প্রকৃতি ও প্রাণীর সঙ্গে বেড়ে ওঠা অধ্যাপক জয়েনউদ্দিনের। উঠোনে খড়েরপুঞ্জ, গোয়ালঘরে গরু ছাগলের লাদি থেকে ভেসে আসা গ্রামীণ সুবাস।

পাশেই শীম শসা ও লাউয়ের মাঁচা, তালপুকুর, বিস্তীর্ণ ধানক্ষেতে জমে থাকা টলটলে জলে খুদেপানার সবুজের মধ্য থেকে ভুরভুর করে উঠে আসা বুদবুদ।

সেখানে দল বেঁধে সাঁতার কাটে টাকি পুঁটি ও খলসে মলা মাছ। জয়েনউদ্দিন খেতখামারের আলধরে হাঁটেন, ফুসফুস ভরে নেন বিশুদ্ধ অক্সিজেন।

শতবর্ষী ছাইতন গাছের গোড়ায় হেলান দিয়ে বসে স্মৃতির জাবর কাটেন। জয়েন উদ্দিনের পরিবারের প্রেম, বিরহ, সঙ্কট- উত্থান ও পতনের চেনা গল্পটা আবর্তিত হয় গ্রাম থেকে শহরে।

সমাজ বদলের স্বপ্নে বিভোর জয়েনউদ্দিনের চোখের সামনেই ঘটতে থাকে একের পর এক অনাকাঙ্খিত ঘটনা। চরম মানসিক অস্থিরতা, হতাশা, লোভ, আর বিকৃতিতে ভরপুর সমাজের মানুষগুলো চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে দেয় মেকি সভ্যতার কাঁচের প্রাসাদ বা শিশমহল ভেঙে খান খান হয়ে যাওয়ার দৃশ্যাবলী।

শিশ মহলের কাহিনী আবর্তিত হয় একজন অধ্যাপক জয়েন উদ্দিন ও তার আশপাশের পরিবারের চিরচেনা সাদা মাটা দৈনন্দিন ঘটনাগুলো নিয়ে।

মধ্যবিত্ত পরিবারগুলোর টানাপড়েনের নিখুঁত ব্যবচ্ছেদের উপন্যাস শিশমহল এরইমধ্যে পাওয়া যাচ্ছে রকমারি ডটকমসহ দেশের বই বিপননকারী অনলাইন স্টোরগুলোতে। ১১২ পৃষ্ঠার উপন্যাসটির মূল্য ২০০ টাকা।

অনন্যার স্বত্তাধিকারী ও প্রকাশক মনিরুল হক বলেন, সামাজিক দায়বদ্ধতা থেকে মানুষের হাতে বছরব্যাপী নতুন বই তুলে দিতে চাই। বই যেমন মানুষের মনের খোরাক মেটায় তেমনি বই সমাজ গড়ে।মানুষের মনের চোখ খুলে দেয়। মানুষকে উদ্দীপ্ত করে, আলোকিত করে।

সামাজিক অবক্ষয়ের চরম এই ক্রান্তিকালে মানুষের হাতে বই তুলে দিতে পারলে সমাজ আবার পুরোনো আলোয় উদ্ভাসিত হয়ে উঠবে।

রকিবুল ইসলাম মুকুল প্রতিশ্রুতিশীল লেখক। তার শিশমহল উপন্যাসটি পাঠক প্রিয় হবে বলে আমার বিশ্বাস।