প্রাথমিকে অনিয়ম, সাংসদের ক্ষোভ

বাংলাবাজার ডেস্ক
প্রাথমিককেই মানুষের জীবনের সবচেয়ে বড় শিক্ষা বলে ধরা হয়। আর তাই প্রাথমিক শিক্ষার প্রতিবন্ধকতা দূর করতে নিরলস কাজ করছে সরকার। এরফলে বিভিন্নস্থানে অনিয়ম আর অভিযোগের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিচ্ছেন স্থানীয় জনপ্রতিনিধিসহ সংশ্লিষ্টরা।

এদিকে লালমনিরহাটের হাতীবান্ধা উপজেলার গড্ডিমারী ইউনিয়নের সুফিয়া নগর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নতুন একাডেমিক ভবন নির্মাণে অনিয়মের অভিযোগ উঠেছে। ওই ভবন উদ্বোধন করতে গিয়ে নিম্নমানের কাজ দেখে ক্ষোভ প্রকাশ করেন স্থানীয় সাংসদ মোতাহার হোসেন।

সংশ্লিষ্টরা জানায়, সুফিয়া নগর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ৭৪ লাখ ২৭ হাজার টাকা ব্যয়ে একটি একাডেমিক ভবন নির্মাণ করেন স্থানীয় সরকার প্রকৌশলী অধিদপ্তর (এলজিইডি)। ভবনটি নির্মানের দায়িত্ব পান জাহেদুল ইসলাম সোহেল নামে এক ঠিকাদার। ভবন নির্মাণের শুরু থেকেই অনিয়মের অভিযোগ তোলেন স্থানীয়রা। কিন্তু ঠিকাদার প্রভাবশালী হওয়ায় তার নিম্নমানের কাজ বন্ধ হয়নি।

ওই ভবন উদ্বোধন করতে গিয়ে বুধবার অনিয়ম দেখতে পেয়ে ক্ষোভ প্রকাশ করেন স্থানীয় সাংসদ বীর মুক্তিযোদ্ধা মোতাহার হোসেন। এ সময় তিনি প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে স্থানীয় সরকার প্রকৌশলী অধিদপ্তর (এলজিইডি)কে নির্দেশ দেন।

এ বিষয়ে হাতীবান্ধা উপজেলা প্রকৌশলী নাজির হোসেন বলেন, আমি এ উপজেলায় যোগদানের আগেই ওই ভবনের মূল কাজ গুলো শেষ হয়ে গেছে। তারপরেও আমি যেসব অনিয়ম পেয়েছি সেগুলোর বিষয়ে তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।
যদিও অনিয়মের অভিযােগ স্বীকার করেছেন ঠিকাদার জাহেদুল ইসলাম সোহেল। তবে এ বিষয়ে তিনি বিস্তারিত মন্তব্য করতে রাজি হননি।