মঙ্গলবার, ১৬ জুলাই, ২০২৪

নির্বাচনে সেনা মোতায়েনের পরিকল্পনা

ফাইল ছবি

অতীতের সকল জাতীয় নির্বাচনের মতো এবারও সেনাবাহিনী মোতায়েনের পরিকল্পনা আছে বলে জানিয়েছেন নির্বাচন কমিশনার মো. আনিছুর রহমান। সোমবার রাঙ্গামাটি জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে আয়োজিত দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন উপলক্ষে আয়োজিত মতবিনিময় সভা শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এ কথা জানান তিনি।

ইসি আনিছুর রহমান বলেন, রাঙ্গামাটি একটি বিশেষ অঞ্চল হিসেবে এখানে আগে থেকেই সেনাবাহিনী রয়েছে। তাই পার্বত্যাঞ্চলের জন্য বিশেষ কৌশলগত কোনো দিক আমাদের বিবেচনা করতে হবে না। তবে সমগ্র দেশের জন্য অতীতের সকল জাতীয় নির্বাচনের মতো এবারও সেনাবাহিনী মোতায়েনের পরিকল্পনা আছে।

পাহাড়ে অবৈধ অস্ত্র উদ্ধারের ব্যাপারে তিনি বলেন, অবৈধ অস্ত্র উদ্ধারের ব্যাপারে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের জননিরাপত্তা বিভাগকে বলা আছে। এছাড়া অবৈধ অস্ত্র উদ্ধারের পাশাপাশি বৈধ অস্ত্রেরও যাতে অবৈধ ব্যবহার না হয় সেদিকে নজরদারি বাড়ানোর জন্য বলা হয়েছে।

এ সময় রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলার রিটার্নিং অফিসার ও জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ মোশারফ হোসেন খানের সভাপতিত্বে সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন- বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) রাঙ্গামাটি সেক্টরের কমান্ডার কর্নেল মো. আনোয়ার লতিফ খানসহ রাঙ্গামাটি ও খাগড়াছড়ির বিভিন্ন সরকারি দপ্তর ও আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা।

এদিকে দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন পর্যবেক্ষণে আগ্রহী দেশি পর্যবেক্ষকদের আবেদনের সময় বাড়িয়ে ১০ ডিসেম্বর করা হয়েছে। ২৫ নভেম্বর আবেদনের সময়সীমা থাকলেও অনেক সংস্থা আবেদন না করা ১০ ডিসেম্বর পর্যন্ত বাড়িয়েছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)। সোমবার (২৭ নভেম্বর) ইসির জনসংযোগ শাখার পরিচালক মো. শরিফুল আলম স্বাক্ষরিত এক চিঠিতে বিষয়টি জানানো হয়েছে।

চিঠিতে বলা হয়, গত ২৫ নভেম্বরের মধ্যে নির্বাচন কমিশনে নিবন্ধিত ৬৭টি স্থানীয় পর্যবেক্ষক সংস্থাকে কোন কোন নির্বাচনী এলাকা (সংসদীয় আসনভিত্তিক) বা এলাকাগুলোতে কেন্দ্রীয় বা স্থানীয়ভাবে নির্বাচন পর্যবেক্ষণ করতে ইচ্ছুক তা উল্লেখ করা ইসি সচিবালয়ের সচিব বরাবর লিখিত আবেদন করার জন্য নির্দেশনা দেওয়া হয়েছিল।

এ সময়ে যেসব স্থানীয় পর্যবেক্ষক সংস্থা আবেদন দাখিল করেননি, তারা আগামী ১০ ডিসেম্বর রোববার বিকেল ৪টার মধ্যে আবেদন করতে পারবেন। পর্যবেক্ষক আবেদন দাখিল সংক্রান্ত আগের নির্দেশনার অন্যান্য বিষয়াদি অপরিবর্তিত থাকবে।

সম্পাদক : জোবায়ের আহমেদ নবীন