শুক্রবার, ১২ এপ্রিল, ২০২৪

২৪ ঘণ্টায় ৮ গাড়িতে আগুন, ফের ৪৮ ঘণ্টার অবরোধ

২৪ ঘণ্টায় ৮ গাড়িতে আগুন, ফের ৪৮ ঘণ্টার অবরোধ

বিএনপি ও সমমনা দলগুলোর ডাকা অবরোধের গত ২৪ ঘণ্টায় সারা দেশে ৮টি গাড়িতে দুর্বৃত্তরা আগুন দিয়েছে বলে জানিয়েছে ফায়ার সার্ভিস। দেশজুড়ে রোববার সকাল ৬টা থেকে সোমবার সকাল ৬টা পর্যন্ত এসব ঘটনা ঘটে। এদিকে নির্বাচনকালীন তত্ত্বাবধায়ক সরকারের দাবিতে চলমান আন্দোলনে আবার মঙ্গলবার বিরতি দিয়ে ৪৮ ঘণ্টার অবরোধ ডাকল বিএনপি। দলের ঘোষণা অনুযায়ী বুধবার ভোর ৬টা থেকে শুক্রবার ভোর ৬টা পর্যন্ত এই কর্মসূচি পালন করা হবে। এরপর দুই দিন সাপ্তাহিক ছুটি শেষে আগামী ১০ ডিসেম্বর আন্তর্জাতিক মানবাধিকার দিবসে ঢাকাসহ সারাদেশের জেলা সদরে মানববন্ধনের কর্মসূচি দেয়া হয়েছে।

গুম-খুন, ‘গায়েবি মামলায়’ গ্রেপ্তার ও মানবাধিকার লঙ্ঘনের অভিযোগে নেতা-কর্মীদের পরিবারের সদস্যরা এই কর্মসূচি যোগ দেয়া হবে। সোমবার নবম দফায় ৪৮ ঘণ্টা অবরোধের দ্বিতীয় দিন বিকালে এক ভার্চুয়াল ব্রিফিংয়ে এই কর্মসূচি ঘোষণা করেন বিএনপির জ্যেষ্ঠ যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী।

এ নিয়ে গত ২৮ অক্টোবর থেকে বিএনপি ১২ বার কর্মসূচি ঘোষণা করল। এর মধ্যে দুইবার ডাকা হয়েছে হরতাল আর ১০ বার ডাকা হয়েছে অবরোধ। সেদিন নয়া পল্টনে পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষে সমাবেশ পণ্ড হয়ে গেলে পরদিন ডাকা হয় হরতাল। এরপর বিএনপির অধিকাংশ জ্যেষ্ঠ নেতা গ্রেপ্তার হন, বাকিরা চলে যান আত্মগোপনে।

সেই কর্মসূচি পালন করে এক দিনের বিরতি দিয়ে টানা ৭২ ঘণ্টা অবরোধ ডাকা হয়। এরপর থেকেই ভার্চুয়াল ব্রিফিং করে দফায় দফায় হরতাল, অবরোধের কর্মসূচি দিয়ে আসছেন রিজভী। এ পর্যন্ত ১৮ দিন অবরোধ এবং চারদিন হরতাল করেছে বিএনপি। এই কর্মসূচিতে নভেম্বরের শুরু থেকে প্রতি মঙ্গলবার বিরতি রাখছে বিএনপি। এছাড়া সরকারি ছুটির দিনও কর্মসূচি থাকে না। টানা কর্মসূচি ডেকে আসলেও এর সমর্থনে ঢাকা বা দেশের অন্য কোথাও রাজপথে দলের নেতা-কর্মীদের তৎপরতা দেখা যাচ্ছে না। মাঝেমধ্যে তারা ঝটিকা মিছিল করে মুহূর্তেই এলাকা ছেড়ে যায়।

ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স সদর দপ্তরের গণমাধ্যম কর্মকর্তা শাজাহান শিকদার সোমবার এ তথ্য নিশ্চিত করে বলেন, ‘২৪ ঘণ্টায় ঢাকা সিটিতে দুটি, গাজীপুরে দুটি এবং চট্টগ্রাম, সিরাজগঞ্জ, বগুড়া ও নাটোরে একটি করে যানবাহনে অগ্নিসংযোগের ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় চারটি বাস ও দুটি ট্রাক, একটি কাভার্ড ভ্যান ও একটি পিকআপ ক্ষতিগ্রস্ত হয়।’

এ আগুন নির্বাপণ করতে ফায়ার সার্ভিসের ১৪ ইউনিট ও ৮০ জন জনবল কাজ করেছেন বলে জানান তিনি। এ ছাড়া, সোমবার দুপুর আড়াইটার দিকে রাজধানীর গুলিস্তান জিরো পয়েন্ট এলাকায় তানজিল পরিবহনের একটি গাড়িতে দুর্বৃত্তরা আগুন দিয়েছে বলে জানান ফায়ার সার্ভিসের এ কর্মকর্তা।

ফায়ার সার্ভিসের দেয়া তথ্য অনুযায়ী, গত ২৮ অক্টোবর থেকে ৪ ডিসেম্বর সকাল ৬টা পর্যন্ত মোট ২৫২টি অগ্নিসংযোগের (কয়েকটি স্থাপনাসহ যানবাহনে) সংবাদ পায় সংস্থাটি।

এদিকে রাজধানীর শাহবাগ থানাধীন পল্টনে তিনটি ককটেল বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে। সোমবার বিকেল সাড়ে ৩টায় এ ঘটনা ঘটে। পল্টন মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. সালাউদ্দিন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, পল্টন মোড়ে বিকেল সাড়ে ৩টায় তিনটি ককটেল বিস্ফোরণ ঘটানো হয়। তবে এতে কেউ আহত হননি। আমরা জড়িতদের ধরতে কাজ করছি। এদিকে রোববার রাজধানীর ফার্মগেট এলাকায় দুটি ককটেল বিস্ফোরণ ঘটায় দুর্বৃত্তরা। বিস্ফোরণে যানজটে দাঁড়িয়ে থাকা একটি মোটরসাইকেলের দুই আরোহী আহত হন।

সম্পাদক : জোবায়ের আহমেদ