মঙ্গলবার, ৭ ফেব্রুয়ারী, ২০২৩

বছরের প্রথম দিনই নতুন বই পাবে শিক্ষার্থীরা

প্রতীকী ছবি

নতুন বছরের প্রথম দিন শিক্ষার্থীদের হাতে নতুন বই তুলে দেয়ার প্রতিশ্রুতি পুর্নব্যক্ত করেছেন শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনি। তিনি বলেন, শত প্রতিকূলতা ও প্রতিবন্ধকতা সত্ত্বেও আমরা আগামী ১ জানুয়ারি শিক্ষার্থীদের হাতে নতুন বই তুলে দেব। মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে নাটোরে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের আয়োজনে আলোচনা সভা ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা জানান তিনি। মঙ্গলবার সকাল ১০টায় শহরের অনিমা চৌধুরী মিলনায়তনে এ অনুষ্ঠান শুরু হয়।

মন্ত্রী বলেন, আমাদের শিক্ষার উন্নয়ন হয়েছে, গবেষণা খাতের উন্নয়ন হয়েছে। ১২টি বিষয়ে পোস্ট গ্র্যাজুয়েট ডিপ্লোমা চালু করেছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়। সুবিধাজনক সময়ে শিক্ষার্থীরা এ ডিপ্লোমায় অংশগ্রহণ করতে পারবেন।

শিক্ষামন্ত্রী আরও বলেন, দুঃখী মানুষের মুখে হাসি ফোটাতে চেয়েছিলেন বঙ্গবন্ধু। তার সেই স্বপ্ন পূরণ করছেন জননেত্রী শেখ হাসিনা। খুনিরা আবার মাথাচাড়া দিচ্ছে, এসব অপশক্তি আমাদের শক্ত হাতে প্রতিহত করতে হবে। স্বাধীনতাবিরোধীদের রাজনীতিতে কোনো সুযোগ নেই, অপশক্তিকে কোনো ছাড় দেয়া হবে না।

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মো. মশিউর রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেন সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল কুদ্দুস, সংসদ সদস্য শফিকুল ইসলাম শিমুল, নাটোর জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা সাজেদুর রহমান খান, বীর মুক্তিযোদ্ধা শিরিন আক্তার।

মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতিচারণ করে বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. সাজেদুর রহমান খান বলেন, মুক্তিযুদ্ধের বীর শহীদদের মহান আত্মত্যাগের কথা স্মরণ করে সোনার বাংলা গড়তে আমাদেরও আত্মত্যাগ করতে হবে। বীর মুক্তিযোদ্ধা শিরীন আক্তার তার বক্তব্যে আবেগাপ্লুত কণ্ঠে মুক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহণের কথা বলেন, লাঞ্ছিত হওয়ার কথা বলেন।

নতুন প্রজন্মকে, সব শিক্ষার্থীকে মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস জানতে হবে জানিয়ে নাটোরের সংসদ সদস্য শফিকুল শিমুল অভিযোগ করেন মাদ্রাসায় জাতীয় সঙ্গীত গাওয়া হয় না। তিনি এ বিষয়ে শিক্ষামন্ত্রীর দৃষ্টি আকর্ষণ করেন।

বীর মুক্তিযোদ্ধা সংসদ সদস্য আব্দুল কুদ্দুস বলেন, নাটোরে যারা বাংলা ভাই, শায়খ আব্দুর রহমান যারা সৃষ্টি করেছে, তারা স্বাধীনতা চায়নি। তিনি দ্রুত নাটোরে বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠার জন্য শিক্ষামন্ত্রীর কাছে জোর দাবি জানান।

সম্পাদক : তাসকিন ফাতেমা

প্রকাশক : জোবায়ের আহমেদ